Archives

পরাজিত পদাবলী-০২

অজানা লহর বাজে উঁচানিচা জখম

যায় ছেড়ে যাক সে তারই খাই কসম

দুধ কলা দিয়ে তারেই পুষেছি যখন

পায় সুখ পাক সে তারই হই আপন

বিপদ-প্রহরে তারই হাত ধরেছি যখন

দেয় ছোঁবল দিক সে বেদনার বিষ

মায়াবী ফর্দ ফেলে জ্বালাক অর্হনিশ

ভেবে নিলে নিলো সে ভাবানার ভেলা

ভাসিয়ে দিলে দিলো সে অপ-অবহেলা

ছেড়ে যায় যাক সে তারই খাই কসম

দুধ কলা দিয়ে তারেই পুষেছি যখন

পরাজিত পদাবলী-০১

অনেক আগে জলার ধারে

হিজলফুলের আভায়

টুপটুপাটুপ ঢেউয়ের উপর

খরস্রোতার লাভায়

অনেক আগে দাঁড়িয়ে ছিলাম

পক্ষপাতের বাঁধায়

মুখোমুখি হলাম যখন

হাত বাড়িয়ে দিলাম যখন

ক্লীব পাতার জরায়

অল্প হলো বায়না তখন

কল্প দেখার নেশায়

আরও আগে অনেক আগে

চুলের পাঠ চুকে দিয়ে

মাথার ওপর দিব্যি দিয়ে

ফিরতে ফিরতে ফেরার পথে

দীর্ঘশ্বাসের কাঁটায়

অনেক আগে আটকে ছিলাম

রক্তপাতের গঙ্গায়

অনেক আগে অনলরাগে

পায়রা ঠোঁটে বার্তা এলো

সত্য পাপে বিরতি হলো

অনেক বোঝাপড়ায়

এরপর এক সংসার পেলে

মনের মতো বর পেলে, বাবু পেলে

দারুণ নাট্যকলায়

আরও আগে হেমের ভেতর

রক্তজবার পাতায়

খুব সংকোচে উঠলো কেঁপে

দ্ব্যর্থ দেহের দোহাই

এরপর হয়নি কিছুই

ব্রাত্যচক্রে সয়নি কিছুই

অসম অভিধায়

অনেক আগে নম্র  মুখে

লজ্জা ভাঙার নেশায়

জল ছলোছল গালের উপর

হাত কাঁপানো দ্বিধায়

তারও আগে দাঁড়িয়ে ছিলাম

পাথরপাতের ধাঁধাঁয়

পাথরপাতের ধাঁধাঁয়, সোনা

পাথরপাতের ধাঁধাঁয় ।